সাকিবকে নিয়ে অভিনেত্রী তিশার স্ট্যাটাস

ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাবের ঘটনায় সাকিব আল হাসানকে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে ২ বছরের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে আইসিসি। এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোষ্ট দিয়েছেন শোবিজ তারকারা। অভিনেত্রী নুসরাত ইমরোজ তিশা ফেসবুকে লিখেছেন, ‘তুমি আমাদেরকে অনেক আনন্দের মুহুর্ত উপহার দিয়েছ, গোটা দেশকে এক করেছ, একই আনন্দে। আজকেও তুমি পুরো দেশকে এক করেছ, একই বেদনায়।

আমরা তোমার সাথেই আছি, সাকিব আল হাসান।’ উল্লেখ্য, আইসিসির আইন লঙ্ঘন করায় ২ বছরের নিষেধাজ্ঞা পেয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি দলের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তবে অভিযোগ স্বীকার করে তদন্তে সহযোগিতা করায় নিষেধাজ্ঞা কমে হয়েছে ১ বছর। সাকিবের কাছে জুয়াড়ি রা ম্যাচ ফিক্সিংয়ের জন্য ফোন করেন। কিন্তু সাকিব একবারও কাউকে জানায়নি। এই ভুলেই শাস্তির সম্মুখীন সাকিব।

ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পেয়ে তা না জানানোয় বাংলাদেশের তারকা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে দুই বছরের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থা আইসিসি। ব্যাপারটা লঘু পাপে গুরু দণ্ড ঠেকছে ভারতের সাবেক অধিনায়ক রাহুল দ্রাবিড়ের কাছে। সাকিবের শাস্তি কমাতে আইসিসি’র প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ‘মিস্টার ডিপেন্ডেবল’।

ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পেয়ে তা গোপন করায় বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিবকে দুই বছরের জন্য নিষিদ্ধ দিয়েছে আইসিসি, যার মধ্যে এক বছরের শাস্তি দোষ স্বীকার করায় স্থগিত থাকবে। মঙ্গলবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সাকিবের এই শাস্তির ঘোষণা দেয় আইসিসি। অপরাধ ও শাস্তি দুটোই মেনে নেয়ায় শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করার সুযোগ থাকছে না সাকিবের।

ফলে ২০২০ সালের ২৯ অক্টোবর পর্যন্ত কোনো ধরনের ক্রিকেটে মাঠে নামতে পারবেন না বাংলাদেশের তারকা এই ক্রিকেটার। এই অপরাধে সাকিবের শাস্তি কিছুটা ‘কঠোর’ হয়ে গেছে বলে মনে করেন দ্রাবিড়। এ ব্যাপারে টুইটে তিনি লিখেছেন- “অবিশ্বাস্য! সাকিবের শাস্তিটা কি কঠিন হয়ে গেল না? সে কি ফিক্সিংয়ে জড়িত ছিল? আমি মনে করি, তার একটাই ভুল সে আইসিসি ও দুর্নীতি দমন কমিশনকে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাবটি জানায়নি। এ জন্য দুই বছরের শাস্তি অনেকটা কঠোর। আমি আশা করি, আইসিসি এই সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করবে।”