প্রায় সাড়ে ৫ হাজার নাগরিক ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন মেক্সিকোতে ।

উত্তর আমেরিকার একটি যুক্তরাষ্ট্রীয় সাংবিধানিক প্রজাতন্ত্র মেক্সিকো। আমেরিকা, প্রশান্ত মহাসাগর, গুয়েতেমালা, বেলিজ ও ক্যারিবিয়ান সাগর বেষ্টিত জনপদ এটি। এ জনপদের ৫ হাজার ৫০০ আদিবাসী পবিত্র ধর্ম ইসলাম গ্রহণ করেছেন। জনসংখ্যার বিচারে বিশ্বের একাদশ বৃহত্তম রাষ্ট্র এটি। ১০৯ মিলিয়ন তথা প্রায় ১১ কোটি জনসংখ্যার দেশ মেক্সিকো। প্রায় ২০ লাখ বর্গকিলোমিটার আয়তনের দেশটি আমেরিকার পঞ্চম বৃহত্তম রাষ্ট্র এবং বিশ্বের চতুর্দশ বৃহত্তম স্বাধীন রাষ্ট্র।

বৃহত্তম দেশ মেক্সিকোর দক্ষিণাঞ্চলীয় রাজ্য চিয়াপাস। ১৯৮৯ সাল থেকে এ পর্যন্ত এ রাজ্যের ৫ হাজার ৫০০ জন আদিবাসী ইসলাম ধর্মে দীক্ষিত হয়েছেন। মেক্সিকো যুক্তরাষ্ট্রীয় অঞ্চলে হলেও দেশটিতে স্পেনীয় ভাষাভাসী মানুষই বেশি। মেক্সিকোর মানুষ উদার ও শান্তি প্রিয়। দেশটির চিয়াপাস রাজ্যে গত দশকে শান্তির সন্ধানে ব্যাপক হারে মানুষ ইসলাম গ্রহণ করেছে। ইসলামের শান্তি ও সহাবস্থানকে স্বাগত জানিয়েছে।

মেক্সিকোতে ইসলাম প্রচার ও প্রসারে অবদান রেখেছে লেবানন, সিরিয়া এবং স্পেনের অভিবাসী মুসলমান। যারা মেক্সিকোতে স্থায়ী ভাবে বসবাস করছে। মেক্সিকোর সবচেয়ে বড় ইসলামিক সেন্টার চিয়াপাস রাজ্যের দক্ষিণাঞ্চলে অবস্থিত। এখান থেকেই ইসলামিক দাওয়াহ ও ইসলাম সম্পর্কে সুস্পষ্ট ধারণা তুলে ধরা হয়।

চিয়াপাস রাজ্যের আদিবাসী ‘তাজুতাজিল’ নাম প্রসিদ্ধ। এ গোত্রের লোকেরা সেদেশের সান ক্রিস্টোবাল দে লাস কাসাস শহরে বসবাস করে। এই গোত্রের অধিকাংশ নাগরিকই ইসলাম ধর্মে দীক্ষিত হয়েছেন।

তাজুতাজিল গোত্রের আদিবাসীদের সংখ্যা প্রায় ৩ লাখ। যারা আমেরিকান প্রাচীন মায়া সম্রাজ্যের অনুসারী। এরা মধ্য আমেরিকান প্রাচীন মায়া সাম্রাজ্য থেকে সৃষ্টি হয়েছে। আরব ও স্পেনীয় মুসলিম অভিবাসীদের আচার-আচরণ ও জীবন-যাপনই তাজুতাজিল আদিবাসীদের ইসলাম গ্রহণের প্রতি উদ্বুদ্ধ করেছে।