করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত জনপ্রিয় অভিনেতা জেমস বন্ড!

ম’রণঘা’তী করনোয় আ’ক্রান্ত হলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা জেমস বন্ড! বিশ্ব যেভাবে করোনাতে আ’ক্রান্ত হচ্ছে তার মধ্যে এ খবরটি পড়ে মনে হতেই পারে আসলে কি এই প্রিয় চরিত্রের ব্যক্তিটি সত্যি সত্যিই আকান্ত কি না। তবে শারীরিক ভাবে জেমস বন্ড করোনায় আ’ক্রান্ত হননি। যেহেতু হলিউডের জনপ্রিয় চরিত্র জেমস বন্ড অভিনীত সব সিনেমাগুলোই সুপারহিট। এবারও সিরিজের ২৫তম সংস্করণ ‘নো টাইম টু ডাই’ সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। কথা ছিল আসছে এপ্রিলেই প্রেক্ষাগৃহে যাবে সিনেমাটি। সে লক্ষ্যে বিশাল আয়োজনে এর প্রচারণাও শুরু হয়েছে।

তবে করোনা ভাইরাসের আ’তঙ্ক হয়ে সরে দাঁড়িয়েছেন অভিনেতা জেমস বন্ড। সম্প্রতি বিশ্বজুড়ে করোনা ভাইরাস ম’হামা’রিতে পরিণত হয়েছে। চারদিকে এই ভাইরাসে আ’ক্রান্ত হওয়ার ভ’য়। তাই এ অস্থির সময়ে জেমস বন্ড সিরিজের নতুন কিস্তির মুক্তি পিছিয়ে দেয়া হয়েছে।সিনেমাটির মুক্তি পিছিয়ে যাওয়া প্রসঙ্গে জেমস বন্ডের টুইটার পেইজে জানানো হয়েছে, বিশ্বব্যাপী সিনেমার বাজারের অবস্থা সতর্কতার সঙ্গে বিবেচনা করে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। নতুন তারিখ অনুযায়ী যুক্তরাজ্যে সিনেমাটি মুক্তি পাবে ১২ নভেম্বর এবং যুক্তরাষ্ট্রে ২৫ নভেম্বর। এমন খবর প্রকাশ করেছে হলিউড রিপোর্টার।

জানা গেছে, বিশ্বের অন্যতম বড় সিনেমা বাজার চীনে। সেখানে প্রায় ৭০ হাজার সিনেমা হলে মুক্তি দেয়ার পরিকল্পনা ছিলো ‘জেমস বন্ড’র নতুন কিস্তিটি। সেই উপলক্ষে চীনের বেইজিং সফরে যাওয়ার কথা ছিল জেমস বন্ড ও তার টিমের। কিন্তু করোনা ভাইরাসের আঁতুরঘর চীনের সেই সফর বাতিল করা হয়েছে। সেইসঙ্গে ছবিটির মুক্তিও পিছিয়ে দেয়া হয়েছে ৭ মাস।‘নো টাইম টু ডাই’ চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন ক্যারি জোজি ফুকুনাগা এবং মেট্রো গোল্ডউইন মেয়ার ও ইয়ন প্র’ডাকশনসের ব্যানারে প্রযোজনা করেছেন মাইকেল জি উইলসন ও বারবারা ব্রুকলি।

সিনেমাতে ড্যানিয়েল ক্রেইগ তার পঞ্চম আউটিংয়ে এমআই-৬ এজেন্ট জেমস বন্ডের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। রালফ ফিয়েনেস, নাওমি হ্যারিস, বেন হিশাও, ররি কিনার, জেফ্রি রাইট, লিয়া সেদুও, ক্রিস্টফ ভালৎজ এবং রেফ ফাইঞ্জ-এর করা পূর্ববর্তী চলচ্চিত্রগুলোর ভূমিকাতে অভিনয় করেছেন রামি মালেক, আনা ডি আরমাস, লাসনা লঞ্চ, ডেভিড ডেনিসেক, ডালি বেনসালাহ এবং বিলি ম্যাগনুসেন। এবারের গল্পে দেখা যাবে, জ্যামাইকায় শান্ত জীবনযাপন করছে জেমস বন্ড। একদিন পুরনো এক বন্ধু সহযোগিতা চাইতে যায় তার কাছে। বন্ধুর আহ্বানে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে অ’পহৃত এক বিজ্ঞানীকে উ’দ্ধারের অ’ভিযানে নেমে পড়েন বন্ড। কিন্তু মিশনে বা’ধা হয়ে দাঁড়ায় রামি মালেক, যার কাছে রয়েছে অত্যাধুনিক সব অ’স্ত্র। তাকে পরাস্ত করার মিশনই ‘নো টাইম টু ডাই’।