পিরিয়ডের সময় যে ৫ কাজ ভুলেও করবেন না ।

পিরিয়ডের সময় যে ৫ কাজ ভুলেও করবেন না ।

নিয়মিত ঋতুচক্র প্রতি মাসে দুই থেকে সাত দিন স্থায়ী থাকে। বেশিরভাগ নারী প্রতি মাসের ২৮ তারিখের সাত দিন আগে অথবা সাত দিন পরে ঋতুস্রাবের মুখোমুখি হয় নারীরা। পিরিয়ড কী প্রতি চন্দ্র মাস পর পর হরমোনের প্রভাবে পরিণত মেয়েদের জরায়ু চক্রাকারে যে পরিবর্তনের মধ্যে দিয়ে যায় এবং রক্ত ও জরায়ু নিঃসৃত অংশ যোনিপথে বের হয়ে আসে তাকেই ঋতুচক্র বলে। মাসিক চলাকালীন পেটব্যথা, পিঠব্যথা ও বমি বমি ভাব হয়ে থাকে।

পিরিয়ডের সময় সুস্থ থাকতে ৫ কাজ ভুলেও করবেন না। আসুন জেনে নেই এই চারটি কাজ সম্পর্কে- ১. পিরিয়ডের সময় ব্যথা বা ক্র্যাম্প নিরাময়ের জন্য নারীরা অনেকক্ষেত্রেই ব্যথানাশক ওষুধ খেয়ে থাকেন।এই ভুল কখনোই করবেন না। পেন রিলিফের এই ওষুধ বা

ইঞ্জেকশনে যে স্টেরয়েড থাকে, তা শরীরের পক্ষে অত্যন্ত ক্ষতিকর। প্রতিনিয়ত এ ধরনের ওষুধ খেলে তার মারাত্মক প্রভাব পড়তে পারে কিডনি ও লিভারের উপরও। পিরিয়ডের ব্যথা এমনিতে ভালো হয়। ২. অনেকেই কাজের চাপে বা অবহেলায় দীর্ঘক্ষণ একই স্যানিটারি ন্যাপকিন ব্যবহার করে থাকেন। দীর্ঘক্ষণ একটি প্যাড ব্যবহার করলে ব্যাকটেরিয়া জমা যায়। এটা অস্বাস্থ্যকর।

৩. পিরিয়ড শুরু হলে প্রতিদিনের শরীরচর্চা বন্ধ করে দিতে হবে। এতে শরীরে সমস্যা হতে পারে। ৪. পিরিয়ড চা বা কফি না খাওয়া ভালো। কারণ ক্যাফেন শরীরকে ডিহাইড্রেট করে। তাই শরীরের ক্ষতি করে দিতে পারে ও বাড়িয়ে দিতে পারে মাথাব্যাথা। এছাড়া টেনশন, নিদ্রাহীনতা, উদ্বেগের মতো সমস্যাগুলি কম হবে। ৫. পিরিয়ডের সময় যো নিতে ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণের ঝুঁকি অনেক বেশি। তাই সঙ্গমে লিপ্ত হলে পর্যাপ্ত সুরক্ষার দিকটা মনে না থাকলে হতে পারে মারাত্মক ক্ষতি।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme