সর্বশেষ আপডেট
মেডিকেলে চান্স পেলো রাজমিস্ত্রির মেয়ে জাকিয়া সুলতানা কলেজে না গিয়েও এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষায় দ্বিতীয় নেহা । বাংলাদেশি কর্মীদের প্রশংসা করে যা বললেন মালয়েশিয়ার পুলিশপ্রধান । বাড়ির নিচতলায় গাড়ী চালকদের জন্য থাকা ও নামাজের ব্যবস্থা করতে হবেঃ প্রধানমন্ত্রী । প্রেমের টানে বাংলাদেশে ভারতীয় গৃহবধূ, সীমান্তে উত্তে’জনা । গোয়ালঘরে শিকলে বাঁধা বৃদ্ধা মা বললেন, মোর পোলারা ভালো । সাড়ে ৮ লাখ টাকা দিয়েও চাকরি হয়নি, কাঁদলেন প্রার্থী । গরু ছেড়ে নারীদের প্রতি বেশি যত্নবান হোনঃ মোদিকে এক নারী । যে কারণে তুহিনকে নি’র্মমভাবে হ’ত্যা করলেন বাবা । পিয়ন থেকে যেভাবে ১২০০ কোটি টাকার মালিক যুবলীগের আনিস ।
এবার রাব্বানীর বিরুদ্ধে নতুন বিস্ফোরক তথ্য ।

এবার রাব্বানীর বিরুদ্ধে নতুন বিস্ফোরক তথ্য ।

এবার ছাত্রলীগের বিতর্কিত সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীর বিরুদ্ধে আরও একটি বিস্ফোরক তথ্য দিলেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সাবেক সাধারণ সম্পাদক শেখ জয়নুল আবেদিন রাসেল।

কিছুদিন আগে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে চাঁদা দাবি করার বিষয়টি খোদ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি মহোদয় প্রধানমন্ত্রীকে জানান। এবার নতুন অভিযোগ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়েও রাব্বানী চাঁদাবাজি করেছিলেন।

শুক্রবার রাতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে দেয়া এক স্ট্যাটাসে শেখ জয়নুল আবেদিন রাসেল এ অভিযোগ তুলেছেন। প্রেমঘটিত বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষের জের ধরে কমিটি বিলুপ্তের প্রায় সাত মাস পর শেখ রাসেল রাব্বানীর বিরুদ্ধে অর্থ দাবি ও টেন্ডার ভাগিয়ে নেয়ার অভিযোগ তুলেছেন।

গত শুক্রবার শেখ রাসেল ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন ক্যাম্পাসের বালু ভরাটের জন্য একজন ঠিকাদার পাঠানো ও তাদের কমিটি বিলুপ্ত না করে আবার ফিরিয়ে দিতে অর্থ দাবি করেছিল গোলাম রাব্বানী। এ ছাড়া এসব অভিযোগের ব্যাপারে তার কাছে যথেষ্ট তথ্য-প্রমাণ আছে বলে জানান।

কেরানীগঞ্জে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় ক্যাম্পাস স্থাপনে ২শ’ একর জমিতে নতুন প্রকল্প নিয়েও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ কমিটির নেতারা সন্তুষ্ট ছিলেন না বলে দাবি করছেন রাসেল। এদিকে রাসেলের অভিযোগের ব্যাপারে জানতে রাব্বানীকে বেশ কয়েকবার মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

উল্লেখ্য, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের প্রেমঘটিত বিষয়ে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের দুই গ্রুপের অভ্যন্তরীণ কোন্দলে দিনব্যাপী দফায় দফায় সংঘর্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টরসহ ২০-২৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়েছিলেন। ওই ঘটনায় সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে ৫ সাংবাদিকও আহত হয়েছিলেন।

আরো খবর… নানা অনিয়মের অভিযোগে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক পদ হারানো গোলাম রাব্বানী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের নির্বাচিত জেনারেল সেক্রেটারি (জিএস)। ছাত্রলীগ থেকে পদচ্যুত হওয়ার পর নৈতিকভাবে তার এ পদেও থাকার অধিকার নেই বলে মনে করেন ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুর।

এ বিষয়ে নুর বলেন, আসলে যেহেতু তার বিরুদ্ধে অনেক অভিযোগ উঠেছে, অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ার ছাত্রলীগের পদও তিনি হারিয়েছেন; সেহেতু আমি মনে করি নৈতিকভাবে তার আর এ পদে থাকার অধিকার নেই।

তিনি আরও বলেন, আশা করছি রাব্বানী পদত্যাগ করবেন। তবে সে পদত্যাগ না করলে ডাকসু সভাপতি হিসেবে ঢাবি ভিসির উচিৎ তাকে পদচ্যুত করার উদ্যোগ নেওয়া। ছাত্রলীগের মতো ঐতিহ্যবাহী একটি সংগঠন থেকে যাকে পদচ্যুত করা হয়েছে তার ডাকসু জিএস থাকা কোনোভাবেই উচিৎ নয়। এটির সঙ্গে ডাকসুর মান সম্মানও জড়িত, বলেন ভিপি নুর।

এদিকে, পদত্যাগ নয়, বরং ডাকসুতে আরো মনোযোগী হবেন বলে গণমাধ্যমকে জানান গোলাম রাব্বানী। তিনি বলেন, ডাকসুতে আমার যে ভূমিকা নেওয়ার সেটির দিকে আরো বেশি মনোযোগী হব।

উল্লেখ্য, চাঁদাবাজির অভিযোগে সমালোচনার মুখে থাকা রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও গোলাম রাব্বানীকে শনিবার রাতে ছাত্রলীগের নেতৃত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। এদিন গণভবনে শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সভায় তাদের বিরুদ্ধে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বৈঠকের পর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এ বিষয়ে সাংবাদিকদের জানান।

তিনি বলেন, আমাদের সভায় ছাত্রলীগের প্রসঙ্গটি এসেছিল। আমাদের নেত্রী বলেছেন, ছাত্রলীগের বর্তমান কমিটি বহাল থাকবে। শুধুমাত্র সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছে। তাদের স্থানে বর্তমান কমিটির ১ নম্বর সহ-সভাপতি ও ১ নম্বর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দায়িত্ব পালন করবেন।

এর আগে গত বছরের ১১ ও ১২ মে নতুন নেতৃত্ব নির্বাচন ছাড়াই ছাত্রলীগের দুই দিনব্যাপী ২৯তম জাতীয় সম্মেলন শেষে ৩১ জুলাই রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভনকে সভাপতি এবং গোলাম রাব্বানীকে সাধারণ সম্পাদক মনোনীত করেন আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সে হিসাবে আরও প্রায় ১১ মাস এই কমিটির মেয়াদ থাকতেই ছাত্রলীগের নেতৃত্ব থেকে সরে যেতে হল শোভন ও রাব্বানীকে। ছাত্রলীগের ইতিহাসে এই প্রথম নানা অনিয়মের অভিযোগে সংগঠনটির শীর্ষ নেতাদের এই পরিণতি হল।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme
[X]