সর্বশেষ আপডেট
মেডিকেলে চান্স পেলো রাজমিস্ত্রির মেয়ে জাকিয়া সুলতানা কলেজে না গিয়েও এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষায় দ্বিতীয় নেহা । বাংলাদেশি কর্মীদের প্রশংসা করে যা বললেন মালয়েশিয়ার পুলিশপ্রধান । বাড়ির নিচতলায় গাড়ী চালকদের জন্য থাকা ও নামাজের ব্যবস্থা করতে হবেঃ প্রধানমন্ত্রী । প্রেমের টানে বাংলাদেশে ভারতীয় গৃহবধূ, সীমান্তে উত্তে’জনা । গোয়ালঘরে শিকলে বাঁধা বৃদ্ধা মা বললেন, মোর পোলারা ভালো । সাড়ে ৮ লাখ টাকা দিয়েও চাকরি হয়নি, কাঁদলেন প্রার্থী । গরু ছেড়ে নারীদের প্রতি বেশি যত্নবান হোনঃ মোদিকে এক নারী । যে কারণে তুহিনকে নি’র্মমভাবে হ’ত্যা করলেন বাবা । পিয়ন থেকে যেভাবে ১২০০ কোটি টাকার মালিক যুবলীগের আনিস ।
দুর্নীতিবিরোধী অভিযানে প্রবাসীদের সহযোগিতা চান প্রধানমন্ত্রী ।

দুর্নীতিবিরোধী অভিযানে প্রবাসীদের সহযোগিতা চান প্রধানমন্ত্রী ।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেছেন প্রবাসী কমিউনিটি নেতা বঙ্গবন্ধু পরিষদ আবুধাবি কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ইফতেখার হোসাইন বাবুল ও সাধারণ সম্পাদক নাছির তালুকদার।

রোববার (২২ সেপ্টেম্বর) সকালে আবুধাবির সাংগ্রিলা হোটেলে তারা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। এ সময় পুষ্পমাল্য দিয়ে আবুধাবিতে আগমন ও প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনের অগ্রিম শুভেচ্ছা জানান তারা।

বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নাছির তালুকদার জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাদের কাছে আমিরাত প্রবাসীরা কেমন আছে তা জানতে চান। তখন আমরা প্রবাসীদের সুখ-দুঃখের কথা প্রধানমন্ত্রীকে বলেছি। তিনি আমাদের মাধ্যমে আমিরাতে অবস্থানরত প্রবাসীদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। এ সময় তিনি সরকারের দুর্নীতিবিরোধী অভিযানে প্রবাসীদের সহযোগিতা কামনা করেন এবং প্রবাসীদেরকে প্রধানমন্ত্রীর জন্য ও দেশের জন্য দোয়া করতে বলেন।

উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের (ইউএনজিএ) ৭৪ তম অধিবেশনে যোগ দিতে যুক্তরাষ্ট্রে আটদিনের সরকারি সফরে নিউইয়র্ক যাওয়ার পথে যাত্রা বিরতিতে গত শুক্রবার আবুধাবি পৌঁছান। বিরতি শেষে তিনি রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় নিউইয়র্কের উদ্দেশ্যে আবুধাবি ত্যাগ করেন। আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর (শুক্রবার) ইউএনজিএ ৭৪তম বার্ষিক অধিবেশনে ভাষণ দেবেন তিনি।

আরো জানুন… প্রেমিকাকে বিয়ের পর পাঁচদিন সংসার করে পালিয়ে গেলেন প্রবাসী স্বামী। এ অবস্থায় স্বামীর বাড়িতে গিয়ে বিয়ে ও স্ত্রীর স্বীকৃতির দাবিতে অনশনে বসেছেন এক নারী।ওই নারীর বাড়ি ঢাকার যাত্রাবাড়ী এলাকায়। টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলায় স্বামীর বাড়িতে বর্তমানে অনশনে আছেন তিনি।

বুধবার বিকেল থেকে বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত উপজেলার বহুরিয়া ইউনিয়নের কালমেঘা চৌরাস্তা গ্রামের শামসুল হক মধু মিয়ার ছেলে মালয়েশিয়া প্রবাসী আনোয়ার হোসেনের বাড়িতে অনশন অব্যাহত রেখেছেন ওই নারী। তবে স্ত্রী বাড়িতে আসার সংবাদ পেয়ে আনোয়ার হোসেন পালিয়ে গেছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মালয়েশিয়া প্রবাসী আনোয়ার হোসেনের সঙ্গে ঢাকার যাত্রাবাড়ী এলাকার ওই নারীর মোবাইলে পরিচয় হয়। পরে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।অনশনরত ওই নারীর ভাষ্য, প্রেমের সম্পর্কের সূত্র ধরে এক বছর আগে কাবিন রেজিস্ট্রি করে বিয়ে করি আমরা। মুঠোফোনের মাধ্যমে বিয়ে হলেও ৩ সেপ্টেম্বর মালয়েশিয়া থেকে দেশে ফিরে কাজি অফিসে গিয়ে কাবিনে স্বাক্ষর করে আনোয়ার হোসেন। পরে ঢাকার যাত্রাবাড়ীতে আমাদের বাসায় পাঁচদিন সংসার করে।

ওই নারী বলেন, বিয়ের ষষ্ঠ দিনে কাউকে কিছু না বলে উধাও হয়ে যায় আনোয়ার। এরপর থেকে আমার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয় সে। এরপর আমি তার বাড়িতে এসে অবস্থান নিই। বাড়িতে আসার পর জানতে পারি আনোয়ারের আগের স্ত্রী রয়েছে। আমাকে দেখে আনোয়ারের স্ত্রী ও অন্যরা ব্যাপক মারপিট করেছে। আমার শরীরের বিভিন্ন অংশে মারপিটের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বহুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম কিবরিয়া সেলিম বলেন, ওই বাড়িতে গিয়ে অনশনরত নারীর সঙ্গে কথা বলেছি। বিদেশ থেকে দেশে এসে ওই নারীকে বিয়ে করেছে আনোয়ার। ওই নারী বাড়িতে আসার খবর পেয়ে পালিয়ে গেছে আনোয়ার। তাকে না পাওয়ায় কোনো সিদ্ধান্ত দিতে পারছি না। স্ত্রীর স্বীকৃতি না পাওয়া পর্যন্ত ওই নারী অনশন করবেন বলে জানিয়ে দিয়েছেন।

আরো পড়ুন… সৌদি আরবের নাজরান এলাকায় নি’হত চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ উপজে’লার মিরপুর গ্রামের সুমন বরকন্দাজের ম’রদেহ ১ মাস ৭ দিন ধরে পড়ে রয়েছে।

সৌদির নাজরান শহরে গত ১৪ আগস্ট হৃদ্‌রোগে আ’ক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে মা’রা যান সুমন। পরিবারের উপার্জনক্ষম একমাত্র ব্যক্তির মৃ’ত্যুতে হতাশায় দিন কাটছে স্ত্রী’, এক ছেলে, এক মেয়েসহ পরিবারের সদস্যদের।

পরিবারে রয়েছে স্ত্রী’ সুরাইয়া আক্তার, ১১ বছর বয়সী মেয়ে হিমু ও ৭ বছর বয়সী ছেলে সাফায়াত।

মৃ’ত সুমনের স্ত্রী’ সুরাইয়া আক্তার বলেন, ‘১ মাস পেরিয়ে গেলেও সৌদির মালিক আমা’র স্বামীর লা’শ দেশে পাঠাতে গড়িমসি করছে। আমা’র ভাশুর শরীফ বাংলাদেশ কনস্যুলেট জেদ্দা শাখার দ্বারে দ্বারে ঘুরেও কোনো সহযোগিতা পাচ্ছেন না।’

সুরাইয়া আরো জানান, পরিবারে স্বচ্ছলতা ফেরাতে পৈতৃক ভিটেমাটি বিক্রি করে প্রায় ১০ লাখ টাকা ঋণের বোঝা নিয়ে মৃ’ত্যুর ৬ মাস আগে সৌদি আরবে যান সুমন।

সুমনের স্ত্রী’ সরকার ও সংশ্লিষ্টদের প্রতি আকুতি জানিয়ে বলেন, ‘শেষবারের মতো স্বামীর ম’রদেহ দেখতে চাই। আমা’র দুই সন্তান সারাক্ষণ বাবার জন্য কা’ন্নাকাটি করছে। দ্রুত লা’শ ফেরত পেতে প্রধানমন্ত্রী ও পররাষ্ট্রমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করছি।’ সেই সঙ্গে মালিকের কাছ থেকে পাওনা টাকা আদায়েও সংশ্লিষ্টদের সহায়তা চেয়েছেন তিনি।

স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর মহসিন জানান, ‘সুমন ব্যক্তিজীবনে খুব ভালো ছেলে ছিলেন। আম’রা চাই তার লা’শ দ্রুত বাংলাদেশে পাঠানো হোক।’

ফরিদগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহফুজুল হক বলেন, ‘বাংলাদেশ সরকারের সহযোগিতা পেলে পরিবারটি সুমনের লা’শ দ্রুত দেশে ফেরত পাবে। তাই আশা করব, সরকার এ বিষয়ে সহযোগিতার পাশাপাশি পরিবারটির পাশে থাকবে।’

অভাবী এই পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছে বাংলাদেশ রেমিট্যান্স যোদ্ধা ঐক্য পরিষদ। তারা ফরিদগঞ্জে গিয়ে অল্প বয়সে স্বামীহারা স্ত্রী’ সুরাইয়া আক্তারের হাতে ২০ হাজার টাকার আর্থিক অনুদান তুলে দেয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme
[X]