সর্বশেষ আপডেট
ঘানায় একসঙ্গে ৪৭৩ ব্যক্তির ইসলাম ধর্ম গ্রহণ ।

ঘানায় একসঙ্গে ৪৭৩ ব্যক্তির ইসলাম ধর্ম গ্রহণ ।

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ ঘানার উত্তর-পূর্বাঞ্চলের নালরাগু প্রদেশের ইয়াবালা গ্রামের ৪৭৩ জন বাসিন্দা এক সঙ্গে পবিত্র ধর্ম ইসলাম গ্রহণ করেছেন। আফ্রিকার ‘রেসালাতে তাওসিয়া’ ইন্সটিটিউটের সদস্যদের দাওয়াত ও তাবলিগের ফলে ইয়াবালা গ্রামের এ লোকেরা ইসলাম গ্রহণ করেন। ঘানার এ ইয়াবালা গ্রামের মোট বাসিন্দার সংখ্যা ১২০০। এদের মধ্যে আগে ৩২০ জন ইসলাম গ্রহণ করেছিলেন। আর এ দফায় ইসলাম গ্রহণ করলেন ৪৭৩ জন। সে হিসেবে ৭৯৩ জন ইসলাম গ্রহণ করেছেন।

আফ্রিকার দেশগুলোতে ‘রেসালাতে তাওসিয়া’ ইন্সটিটিউট ইসলামের প্রচার-প্রসারে নিরলস কাজ করে যাচ্ছে। তাদের দাওয়াত ও তাবলিগের মেহনতেই ইসলামের সুমহান আদর্শে উজ্জীবিত হয়ে দলে দলে মানুষ ইসলাম গ্রহণ করছেন। দাওয়াত ও তাবলিগের ধারক সংগঠন ‘রেসালাতে তাওসিয়া’ ইন্সটিটিউট। এ ইন্সটিটিউটে ইসলামের প্রচার-প্রসারে নিয়মিত ধর্মীয় শিক্ষার ক্লাসের আয়োজন করে চলেছেন সংগঠনটি।

দাওয়াত ও তাবলিগের কাজ ছাড়াও সংগঠনটি আফ্রিকার বিভিন্ন দেশে সমাজ-সংস্কারমূলক কাজও করে থাকে। বিভিন্ন দেশে মসজিদ নির্মাণ, কূপ খনন করা ছাড়াও মুসলমানদেরকে বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করে যাচ্ছে সংগঠনটি। নও মুসলিম অধ্যুষিত ইয়াবালা গ্রামের এখনো কোনো মসজিদ নির্মাণ হয়নি। নেই কোনো পুরনো মসজিদও। নও মুসলিমদের উদ্যোগেই মসজিদ নির্মাণের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। ইতোমধ্যে মসজিদ নির্মাণে মুসলমানরা আর্থিকভাবে সহায়তাও করেছেন।

রাশিয়া থেকে হজ করবে ২৫ হাজার মুসলিম…. জনসংখ্যার দিক থেকে নবম হলেও বিশ্বের বৃহত্তম দেশ রাশিয়া। এবার বৃহত্তম এ জনপদ থেকে হজ উপলক্ষ্যে পবিত্র নগরী মক্কায় যাবেন ২৫ হাজার হাজি। সৌদি আরবে হজ কর্তৃপক্ষ এ বছর (২০১৯ সালের হজ কোটায়) ৫ হাজার হাজির সংখ্যা বৃদ্ধি করেছে। যা গত বছর ছিল ২০ হাজারে। হজ কোটায় ৫ হাজার হাজির সংখ্যা বাড়ানোর ফলে এবার বিশ্বের বৃহত্তম দেশ ও জনসংখ্যায় নবমতম দেশটি থেকে ২৫ হাজার মুসলমান হজ পালন করবেন। সৌদি প্রেস এজেন্সির (এসপিএ) তথ্য মতে, গতকাল শনিবার রাশিয়ার হজ যাত্রীদের প্রথম দলটি সৌদি আরব এসেছেন।

সৌদি আরব ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের সীমান্তবর্তী ‘আল-বাথহা’ প্রবেশ গেট দিয়ে তারা সৌদি আরব পৌঁছেছেন। সৌদি আরবের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা তাদের অভ্যর্থনা জানান। এবারের হজে রাশিয়ার ৬৪টি অঞ্চল থেকে মুসলমানরা হজে যাবে। এসব হাজিদের মধ্যে অধিকাংশই ককেশাসের নাগরিক। এছাড়াও দাগেস্তান, চেচনিয়া, তাতারস্তান, বাশকোটোস্টান এবং ইঙ্গুশিয়ার মুসলমানরাও যাবে পবিত্র হজ পালনে। রাশিয়া ইউরোয়েশিয়ান অঞ্চলীয় দেশ হিসেবে পরিচিত। দেশটিতে অর্থোডক্স খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীরাই প্রথম স্থান দখল করে আছে। আর দ্বিতীয় স্থানেই রয়েছে ইসলাম ধর্মাবলম্বীরা। আল্লাহ তাআলা রাশিয়ার মুসলিমদের সহজ ও নিরাপদে হজ সম্পাদনের তাওফিক দান করুন। আমিন।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme
[X]