সর্বশেষ আপডেট
হিন্দুদের ইয়োগা অনুশীলন করা হচ্ছে ভারতের মসজিদে টাঙ্গাইলে করোনা ভা’ই’রা’স আ’ত’ঙ্কে প্রবাসী স্বামীকে ছেড়ে পালাল স্ত্রী যে কারণে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় তৃতীয়স্থান পাওয়া ঢামেকের শিক্ষার্থীর আ’ত্ম’হ’ত্যা’র চেষ্টা দেহ ব্যবসায় বেশি বিবাহিত নারীরা, ফাঁস হলো গোপন তথ্য… মাহফিল থেকে ফেরার পথে আলোচিত মুফাসসির আব্দুল্লাহ আল-আমিন গ্রেফতার বুয়েটের সেই ইফতি এখন রকেট ইঞ্জিনিয়ার মানবপাচারে এমপি জড়িত, পররাষ্ট্রমন্ত্রী বললেন ‘ভূয়া’ ঢাকায় রেললাইনে সেলফি তোলার সময় ট্রেনের ধাক্কায় কিশোর নিহত তাহসানের মত হ্যান্ডসাম হতে প্লাস্টিক সার্জারি করাচ্ছেন সৃজিত! করোনা আক্রান্ত সন্দেহে টাঙ্গাইলে প্রবাসীর সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ স্থানীয়দের
আরো ৪ বছর ট্রাম্পকে সহ্য করার অবস্থায় নেই আমেরিকা: হিলারি

আরো ৪ বছর ট্রাম্পকে সহ্য করার অবস্থায় নেই আমেরিকা: হিলারি

২০১৬ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পরাজিত প্রার্থী হিলারি ক্লিন্টন বলেছেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষে আরো চার বছরের জন্য ডোনাল্ড ট্রাম্পকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে মেনে নেয়া সম্ভব নয়।তিনি রোববার ফরাসি বার্তা সংস্থা এএফপিকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে ওই মন্তব্য করেন।
হিলারি বলেন, চলতি বছরের শেষভাগে অনুষ্ঠেয় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্র্যাট প্রার্থীকে জিততেই হবে। আগামী নভেম্বর মাসে আমেরিকায় যে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে সে সম্পর্কিত এক প্রশ্নের জবাবে হিলারি বলেন,

ওই নির্বাচেন ট্রাম্প আবার বিজয়ী হলে যুক্তরাষ্ট্রের গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা হু’’মকির মুখে পড়বে। কাজেই ডেমোক্র্যাট প্রার্থীকে নির্বাচনে বিজয়ী করার জন্য তিনি সর্বোচ্চ চেষ্টা চালাবেন বলে মন্তব্য করেন হিলারি ক্লিন্টন। সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট বিল ক্লিন্টনের স্ত্রী হিলারি আরো বলেন, “আমাদেরকে আমাদের প্রতিদ্বন্দ্বীর চেয়ে বেশি চেষ্টা চালাতে হবে। কারণ, তারা অনেক বেশি সুসংগঠিত এবং তাদের অর্থের উৎস অনেক বেশি। এমনকি তারা বিদেশ থেকেও অর্থ সংগ্রহ করে।” হিলারি আরো বলেন,

“রিপাবলিকানরা আমাদের চলার পথে যত প্রতিবন্ধকতাই সৃষ্টি করুক না কেন আমাদেরকে তা অতিক্রম করতে হবে।” ২০১৬ সালের নভেম্বরে অনুষ্ঠিত মা’’রাত্মক প্রশ্নবিদ্ধ প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে হিলারিকে হারিয়ে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন ডোনাল্ড ট্রাম্প। ২০১৭ সালের ২০ জানুয়ারি নির্বাচনের ফলাফল প্র’’ত্যাখ্যান করে জনগণের প্রতিবাদ মিছিলের মধ্যেই শপথ গ্রহণ করেন ট্রাম্প। শপথ গ্রহণের অনুষ্ঠান থেকেই প্রায় ১০০ বিক্ষো’’ভকারীকে আ’’টক করা হয়েছিল।

আরো পড়ুন… নির্বাচনী প্রচারণাই এখন তাদের ক্যারিয়ার। টিভি নাটক, চলচ্চিত্র কিংবা বিজ্ঞাপন কোনো মাধ্যমেই সেভাবে দেখা যায়না জনপ্রিয় মডেল অভিনেত্রী আজমেরি হক বাঁধনকে। বেশকিছুদিন ধরে শোনা যাচ্ছে একটা চলচ্চিত্রে কাজ করছেন, কিন্তু সেই বিষয়েও বিস্তারিত জানাননি তিনি। ছবিটিতে কাজের বিষয়ে তিনি বলেন, এরইমধ্যে নতুন একটি সিনেমার কাজ শেষ করেছি। নামটা এখন জানাতে চাই না। তবে বর্তমানে বিভিন্ন জায়গায় নির্বাচনী প্রচারণার কাজেই বেশি সময় দিচ্ছেন এই তারকা।

১৫ জানুয়ারি রাজধানীর ফার্মগেট আল-রাজী হাসপাতালের সামনে মেয়র আতিকুলের নির্বাচনি প্রচারণায় দেখা যায় নায়িকা বাঁধনকে। এরপর আতিকুলের হয়ে ভোট চাইতে শহরের নানান প্রান্তে প্রচারণায় অংশনেন লাস্যময়ী এই নায়িকা। এদিকে, এপার বাংলা ও ওপার বাংলা দুই দেশেই নির্বাচনী প্রচারণায় যোগ দিয়ে বেশ সমালোচিত হয়েছেন চিত্রনায়ক ফেরদৌস। নতুন কোনো চলচ্চিত্রে নাম না লেখালেও

বিভিন্ন নির্বাচনী প্রচারণায় নিয়মিত দেখা যায় ‘হঠাৎ বৃষ্টি’ খ্যাত এই নায়ককে। গত শনিবার বিকালে মিরপুরের কাফরুল এলাকায় গণসংযোগে নৌকা প্রতীকের পক্ষে স্লোগান দিয়ে আসন্ন নির্বাচনে আতিকুলকে ভোট দিতে আহ্বান জানান অভিনেতা ফেরদৌস। এছাড়া, গত জাতীয় নির্বাচনেও দেশের নানান জেলা ও শহরে নির্বাচনী গণসংযোগে দেখা গিয়েছিলো দুই বাংলার জনপ্রিয় এই নায়ককে।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme