সর্বশেষ আপডেট
লাইভ শোতে ২ সৌদি সমকামি তরুণীর ভালোবাসা প্রকাশ! ঝুড়িতে পাওয়া গেল কন্যা শি’শু, নাম দেওয়া হল ‘একুশে’ জরুরী আবহাওয়া বিজ্ঞপ্তিঃ সোমবার থেকে বৃষ্টি, চলবে তিনদিন! সুন্দরীর বিয়ের ফাঁদ, অপহরণ করে ১০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি, এরপর বেরিয়ে আসল চাঞ্চল্যকর তথ্য… বাসে বাবার বয়সী ব্যক্তির যৌ’ন হয়’রানি, কেঁদে বিচার চাইলেন বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী আরব আমিরাতে করোনাভাইরাসে বাংলাদেশি প্রবাসী আ’ক্রা’ন্ত যুক্তরাষ্ট্রে কোরআন ছুঁয়ে শপথ নিলেন পুলিশ কর্মকর্তা গর্ভবতী হওয়া নিয়ে এবার মুখ খুললেন নায়িকা বুবলী, জেনে নিন নায়িকার স্বীকারুক্তি… কুমিল্লায় কয়েক হাজার কোটি টাকা নিয়ে শতাধিক কোম্পানি উধাও এবার নোবেলকে বিয়ে করছেন পূর্ণিমা!
স্বামীর বি’রু’দ্ধে অ’ভি’যো’গ দিতে গিয়ে ওসির সাথে যা করল স্ত্রী, ফাঁস হলো গোপন তথ্য…

স্বামীর বি’রু’দ্ধে অ’ভি’যো’গ দিতে গিয়ে ওসির সাথে যা করল স্ত্রী, ফাঁস হলো গোপন তথ্য…

স্বামীর বিরু’দ্ধে অভি’যোগ দিতে গিয়েছিলেন থানায়। সেখানেই ওসির সঙ্গে পরিচয় হয়। এরপর দিন দিন পরিচয়ের গভীরতা বাড়তে থাকে। একপর্যায়ে পরকী’য়ায় জড়ান তারা। চলে অবাধ মেলামেশা। এরপর বিয়ে। কিছুদিন সংসার করতে না করতেই সংসারে ভাঙন। পরে বগুড়ার গাবতলী থানার ওসি আবদুল্লাহ আল হাসানের আ’ত্মহ’ত্যা। আ’ত্মহ’ত্যার প্ররোচনায় অভিযুক্ত স্ত্রী রুমানা আক্তার।

এ মামলায় মিতুকে পাঁচ দিনের রিমা’ন্ড শেষে আদালতে হাজির করে আরো পাঁচ দিনের রিমা’ন্ড আবেদন করে পুলিশ।মিতু সম্পর্কে পাবনার স্থানীয়রা জানান, সাবেক সেনা সদস্য মোকছেদ আলীর মেয়ে মিতুর সঙ্গে ২০১১ সালের ২৩ ডিসেম্বর সিঙ্গাপুর প্রবাসী মোনায়েম হোসেন সাগর নামের এক যুবকের বিয়ে হয় পারিবারিকভাবে। তখন মিতু পাবনা এডওয়ার্ড কলেজে হিসাব বিজ্ঞানে অনার্সে পড়ছিলেন।

বিয়ের এক বছর পর মিতু স্বামীর সঙ্গে সিঙ্গাপুরে চলে যান। কয়েক মাস পর আবার দেশে ফিরে আসেন তিনি। অবস্থান করেন স্বামীর পাবনার সুজানগরের বাসায়। ২০১৩ সালের ১৪ মার্চ তার একটি ছেলে সন্তান জন্ম নেয়। সন্তান ও তার হাত খরচের টাকা ঠিকমতো না দেয়ার অভিযোগে মিতু সুজানগর থানায় স্বামী সাগরের বিরু’দ্ধে একটি অভিযোগ দাখিল করেন। এ সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে যোগাযোগের সময় পরিচয় ও পরকীয়া সম্পর্ক

গড়ে ওঠে পাবনা সদর থানার তৎকালীন ওসি আবদুল্লাহ আল হাসানের সঙ্গে। ২০১৬ সালের ৩০ মার্চ মিতু তার স্বামীকে এক তরফা তালাক দেন। এর কয়েক মাস পর ৩ জুলাই ৬ লাখ টাকা দেনমোহরে ওসি হাসানের সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আব’দ্ধ হন। এটি ওসি হাসানেরও দ্বিতীয় বিয়ে। এই বিয়ের কথা পরে ওসি হাসানের প্রথম স্ত্রী সুলতানা রাজিয়া জানতে পারেন। তিনি এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে রাজশাহীতে থাকেন।

মিতুর সঙ্গে বিয়ের পর ওসি হাসান পাবনা থেকে জয়পুরহাট ও পরে বগুড়ার গাবতলী থানায় বদলি হয়ে আসেন। এই সময়ে তাদের মধ্যেও সম্পর্কের অবনতি হয়। চলতি বছরের ১৭ জানুয়ারি হাসান নোটারি পাবলিকে অ্যাফিডেভিটের মাধ্যমে ২০ লাখ টাকা ক্ষ’তিপূরণের মাধ্যমে তালাক দেন মিতুকে। এরপরও মিতু আরো টাকার জন্য হাসানকে চাপ দিতেন। এতে মানসিকভাবে ভে’ঙে পড়েন তিনি।

মিতু গত ১১ মার্চ বগুড়ায় এলে হাসান তাকে কিছু টাকা-পয়সা দিয়ে বিদায় করেন। হাসানের প্রথম স্ত্রী বগুড়ায় একেবারে চলে আসার কথা জানতে পেরে মিতু হাসানকে জানান তিনিও ২৯ মার্চ বগুড়ায় আসবেন। সেদিনই পুলিশের কোয়ার্টারে গলায় দড়ির ফাঁ’স দিয়ে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলে আ’ত্মহ’ত্যা করেন হাসান। ঘটনার দিন হাসানের প্রথম স্ত্রী সুলতানা রাজিয়া দুই সন্তানকে নিয়ে রাজশাহী থেকে গাবতলীর উদ্দেশে রওনা দেন।

সকাল ১০টার দিকে নাটোরের সিংড়ায় আসার পর হাসানের সঙ্গে তার মোবাইল ফোনে শেষ কথা হয়। এরপর হাসানের ফোন বন্ধ পাওয়া গেলে গাবতলী থানায় যোগাযোগ করে তিনি জানতে পারেন তার স্বামীর আ’ত্মহ’ত্যার কথা। পরে ওসি হাসানের প্রথম স্ত্রী সুলতানা রাজিয়া বাদী হয়ে ২৯ মার্চ আ’ত্মহ’ত্যায় প্ররোচনার মাম’লাটি করেন। এ মাম’লায় গাবতলী থানার পুলিশ পর দিন পাবনা জেলা পুলিশের সহযোগিতায় মিতুর বাবা ও তাকে তাদের ভাড়া বাসা থেকে গ্রেফ’তার করে।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2019 newstodaybd.com
Design BY NewsTheme